প্রতিবেশীকে ফাঁসাতে ধর্ষণ চেষ্টার মামলা : প্রতিকার চেয়ে সংবাদ সম্মেলন 

0
273

মোস্তাক আহমেদ মনির, নিজস্ব প্রতিবেদক

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে পারিবারিক কলহকে জের ধরে চাচাতো দেবরকে ফাঁসাতে তিন সন্তানের জননী এক গৃহবধূ পাঁচমাস আগের ঘটনা দেখিয়ে ধর্ষণ চেষ্টার মামলা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনার প্রতিকার দাবিতে মঙ্গলবার বিকেল ৩টায় হয়রানীর শিকার যুবক লিটন মিয়ার পরিবার সরিষাবাড়ী প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে হয়রানীর শিকার পরিবারের সদস্যরা বলেন, পৌরসভার কামরাবাদ গ্রামের হাসান আলী ভানুর সহজ-সরল সন্তান মো. লিটন মিয়া (২৫)। একই গ্রামের প্রতিবেশী চাচাতো ভাই আমিনুর ইসলামের পরিবারের সাথে তার পরিবারের মধ্যে ছোটখাটো পারিবারিক কলহ ছিলো। এ কলহকে ভিন্নখাতে নিতে আমিনুর ইসলামের স্ত্রী তিন সন্তানের জননী সুমিতা বেগম (২৫) গত ২৭ সেপ্টেম্বর জামালপুর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-২ আদালতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ (সংশোধনী ২০০৩) এর ৯ (৪) (খ) ধারায় লিটন মিয়ার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা দায়ের করেন। (যার নম্বর ১১৩/২০২০)।
ভূক্তভোগী মো. লিটন মিয়া জানান, মামলায় ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনা দেখানো হয়েছে ২৪ এপ্রিল, অথচ মামলা করা হয়েছে দীর্ঘ পাঁচমাস পর ২৭ সেপ্টেম্বর। থানায় মামলা করলে প্রাথমিকভাবেই মিথ্যা প্রমাণিত হবে বলে হয়রানীর উদ্দেশ্যে বাদী আদালতে গিয়েছেন। যা উদ্দেশ্যপূর্ণ বলে প্রতীয়মান।

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন ভূক্তভোগীর শ্বশুর তসলিম উদ্দিন, বড়ভাই সেলিম মিয়া প্রমুখ।